এমন পুলিশ অফিসারই চায় বাংলাদেশের জনসাধারন

মুহাম্মদ ইউসুফ খাঁন- সীতাকুন্ড: এমন পুলিশ অফিসারই চায় বাংলাদেশের জনসাধারন বললেন আগন্তুক সেবাগ্রহনকারী জামাল উদ্দীনসহ উপস্হিত কয়েকজন নারী পুরুষ। ১ অক্টোবর ২০১৯ ইং তারিখে আকস্মিকভাবে সীতাকুন্ড সার্কেল অফিস থেকে এসে সীতাকুন্ড মডেল থানায় সরাসরী ডিউটি অফিসারের চেয়ারে বসে পড়লেন এডিশনাল এসপি শম্পা রানী সাহা। একে একে কয়েকজন আইনী সেবা নিতে আসা ভূক্তভোগীদের অভাব অভিযোগ অনুযোগ সবই শুনলেন এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্হা নিতে নির্দেশ দিলেন অধীনস্হ কর্মকর্তাদের। এ সময় এডিশনাল এসপির সহিত উপস্হিত ছিলেন সীতাকুন্ড মডেল থানার ওসি(তদন্ত) শামীম শেখ। এডিশনাল এসপি বললেন, নিজ দায়িত্ব ও কর্তৃব্যবোধ এড়িয়ে যেতে পারিনা। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও পুলিশের আইজি মহোদয়ের নির্দেশনা মোতাবেক জনসাধারনকে সর্বোচ্চ আইনী সহায়তা দিতে আমরা বদ্ধপরিকর। তিনি প্রতিশ্রুতি দিলেন যে, এখন থেকে ন্যূনতম একদিন সম্ভব হলে আরো বেশী সময় জনধারনকে তিনি আইনী সেবা দিতে সচেষ্ট থাকবেন। জনসাধারন তাদের কাংখিত সেবা যেন যথাযথ পায় সেদিকটাতে আমরা বেশী মনোযোগী হচ্ছি। আমরা জনসাধারনের একান্ত আপন হয়ে কাজ করবো। এডিশনাল এসপির এমন সেবায় উপস্হিত ভূক্তভোগীরা আশার আলো দেখছেন বলে জানালেন ক’জন। পুলিশ প্রশাসন হোক জনতার প্রকৃত সেবক এমনটি আশাবাদ তাদের।।